পলিটি চেক

পলিটি চেক

January 11, 2021, 5:28 am

Updated: January 12, 2021, 11:00 am

সজীব ওয়াজেদ কি TIME ম্যাগাজিনের এডিট করা প্রচ্ছদ পোস্ট করেছেন?

Author: BD FactCheck Published: January 11, 2021, 5:28 am | Updated: January 12, 2021, 11:00 am

সারাংশ: TIME ম্যাগাজিনের আর্কাইভ ঘেঁটে এবং অন্যান্য প্রমাণাদি বিশ্লেষণ করে বিডি ফ্যাক্টচেক এই সিদ্ধান্তে উপনীত হয়েছে যে, সজীব ওয়াজেদের পোস্ট করা প্রচ্ছদটি এডিট করা নয়।

প্রধানমন্ত্রীর তথ্যপ্রযুক্তি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় রোববার রাতে তার ফেসবুক পেইজে একটি ছবি পোস্ট করেন। টাইম ম্যাগাজিনের কভারের ছবিটির সাথে তিনি ক্যাপশনে লিখেছেন “Cover of Time Magazine (17 January 1972)”.

জয়ের পোস্টের নিচে অনেকেই মন্তব্য করেছেন যে, এটি টাইম ম্যাগাজিনের ১৯৭২ সালের ১৭ জানুয়ারির প্রকৃত কভারের ছবি নয়। তারা টাইম ম্যাগাজিনের ওয়েবসাইটের একটি লিংকও দিচ্ছে রেফারেন্স হিসেবে, যেখানে দেখা যাচ্ছে ওই তারিখে ম্যাগাজিনটির কভার হিসেবে ভিন্ন একটি কভার রয়েছে; জয় যেটি পোস্ট করেছেন সেটি নয়।

এরকম কিছু কমেন্ট দেখুন নিচের স্ক্রিনশটে–

পোস্টটির কমেন্ট বক্সে অনেকে BD FactCheck-কে মেনশন দিয়েছেন ছবিটি যাচাইয়ের জন্য।

সজীব ওয়াজেদ জয়ের পোস্ট করা কভারটিকে এডিটেড এবং ভুয়া দাবি করে ফেসবুকে কিছু পোস্টও ইতোমধ্যে এসেছে। তেমন একটি পোস্টের স্ক্রিনশট দেখুন–

ডেইলি স্টার পত্রিকাও তাদের অনলাইনে রোববার একটি প্রতিবেদন করেছে টাইম ম্যাগাজিনের এই কভারটি নিয়ে। দেখুন সেই প্রতিবেদন এখানে

BD FactCheck যাচাই করে দেখার চেষ্টা করেছে কার দাবি আসলে সত্য? সজীব ওয়াজেদের পোস্ট করা কভারের ছবি, নাকি বিপরীতে যারা এটিকে ভুয়া বা এডিট করা বলছেন তাদের দাবি?

টাইম ম্যাগাজিনের ওয়েবসাইটের যেই লিংকটি সজীব ওয়াজেদের পোস্টের কমেন্টে অনেকে শেয়ার করছিলেন সেটি নিচের লাইনে দেয়া হলো:

এই লিংকে ক্লিক করলে যে পেইজটি ভেসে ওঠে সেটির স্ক্রিনশট দেখুন–

এখানে ১৭ জানুয়ারি ১৯৭২ সালে প্রকাশিত টাইম ম্যাগাজিনের কভার হিসেবে যেই ছবিটি আছে সেটির সাথে জয়ের পোস্ট করা কভারের মিল নেই।

আমরা time.com এর ওয়েবসাইটের The TIME Vault সেকশনে নিয়ে বছর ভিত্তিক সার্চ করে ১৯৭২ সালের ১৭ জানুয়ারি সংখ্যাটি খুঁজেছি। সেখানেও উপরে উল্লিখিত কভারটিই দেখা যাচ্ছে; যেখানে দুইজন রাগবি খেলোয়াড়ের অ্যাকশন দৃশ্যমান।

দেখুন এই লিংকে:

এখানে দেখুন স্ক্রিনশট–

জয়ের পোস্ট করা কভারের ছবিটি TIME এর ওয়েবসাইটে পাওয়া যায়নি। এছাড়া ডেইলি স্টারের উপরে উল্লিখিত প্রতিবেদন ছাড়া অন্য কোনো নির্ভরযোগ্য সূত্রেও মেলিনি এই কভারের ছবি।

তবে একটি বিষয় লক্ষ্যণীয়। তা হলো টাইম এর ওয়েবসাইটে ১৯৭২ সালের ১৭ জানুয়ারির যে কভারটি বর্তমানে শোভা পাচ্ছে সেটির নিচে লেখা রয়েছে “U.S.”; অর্থাৎ এই কভারটি যুক্তরাষ্ট্র এডিশনের।

TIME ম্যাগাজিনের ৪টি এডিশন হয়। সেগুলো হলো- U.S. এডিশন, Europe, Middle East and Africa এডিশন, Asia এডিশন এবং South Pacific এডিশন।

দেখুন এই লিংকে:

নিচের স্ক্রিনশটটি দেখুন–

উপরের স্ক্রিনশটে দেখা যাচ্ছে ২০০৬ সালের ৬ নভেম্বরের TIME ম্যাগাজিনের সংখ্যাটি দৃশ্যমান। এখানে একই সংখ্যার ম্যাগাজিন ৪ এডিশনে ৩ রকমের কভারে ছাপা হয়েছে। এশিয়া এডিশনে মাহাথির মুহাম্মদকে নিয়ে প্রচ্ছদ (কভার) করা হয়েছে, কিন্তু যুক্তরাষ্ট্র এডিশনের প্রচ্ছদে রয়েছেন জর্জ বুুশ।

আরেকটি স্ক্রিনশট দেয়া হলো নিচে। ২০০৬ সালের এপ্রিল মাসে তখনকার প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে নিয়ে এশিয়া এডিশনে কভার করে টাইম ম্যাগাজিন। একই সংখ্যায় অন্য চার এডিশনে চারটি ভিন্ন কভার ছাপায়।

ম্যাগাজিনটির ওয়েবসাইট ঘেঁটে এমন অসংখ্য উদাহরণ দেখা গেছে যেখানে একই সপ্তাহের ম্যাগাজিন ৪ এডিশনে ভিন্ন ভিন্ন কভারে ছাপা হয়েছে।

TIME ওয়েবসাইটের vault-এ U.S. এডিশনের সব সংখ্যার (১৯২৩ সাল থেকে) কভার ও কন্টেন্ট পাওয়া গেলেও অন্যান্য এডিশনের সব কভার ও কন্টেন্ট এখনও পাওয়া যাচ্ছে না।

এশিয়া এডিশনের বেশ কিছু কভার আছে এই লিংকে:

কিন্তু এখানে বিচ্ছিন্নভাবে বিভিন্ন সংখ্যার কভার আপলোড করা হয়েছে। কোনো বছরের কোনো কোনো সংখ্যা আপলোড করা আছে, কোনো বছরের একটি সংখ্যাও নেই। ১৯৭২ সালের কোনো সংখ্যার কভারই স্থান পায়নি আর্কাইভে। এই সেকশনের নিচে লেখা রয়েছে “Complete archive still in progress” (অর্থাৎ সম্পূর্ণ আর্কাইভ আপলোডের কাজ এখনও চলছে)।

নিচে এশিয়া এডিশনের কিছু কভারের একটি স্ক্রিনশট দেখুন–

১৯৭২ সালের ১৭ জানুয়ারির U.S. এডিশনে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে একটি নিবন্ধ রয়েছে। সেটির শিরোনাম “BANGLADESH: Mujib’s Road from Prison to Power”.

টাইম এর ওয়েবসাইটের আর্কাইভ থেকে নেয়া ম্যাগাজিনের সেই প্রতিবেদনের প্রথম পৃষ্ঠাটি দেখুন–

ওয়েব ভার্সনে একই প্রতিবেদন দেখুন এখানে

সজীব ওয়াজেদের পোস্ট করা TIME এর কভারটিতে শিরোনাম দেখা যাচ্ছে “Bangladesh: From Jail to Power”; সাথে শেখ মুজিবুর রহমানের ছবি এবং পাশে তার নাম লেখা। অন্যদিকে ম্যাগাজিনটির U.S. এডিশনে এ সংক্রান্ত প্রতিবেদনের শিরোনাম “BANGLADESH: Mujib’s Road from Prison to Power”.

অর্থাৎ, এই দুই শিরোনামের মিল দেখে অনুমান করা যায় যে, ১৭ জানুয়ারি ১৯৭২ সালের সংখ্যায় টাইম ম্যাগাজিন যুক্তরাষ্ট্র এডিশনে দুই রাগবি খেলোয়াড়কে নিয়ে প্রচ্ছদ করেছে, আর এশিয়া এডিশনে বাংলাদেশ ও বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে প্রচ্ছদ করেছে। ফলে বর্তমানে তাদের ওয়েবসাইটে যুক্তরাষ্ট্র এডিশনে খেলোয়াড়দের প্রচ্ছদ দেখা যাচ্ছে। অন্যদিকে পর্যায়ক্রমে আপডেট হতে থাকা এশিয়া এডিশনের আর্কাইভে এখনও ওই সংখ্যার এশিয়ান প্রচ্ছদটি আপলোড করা হয়নি।

প্রসঙ্গত, এ বিষয়টি আরও প্রামাণ্য করা যেত বাংলাদেশের জাতীয় আর্কাইভ থেকে টাইম ম্যাগাজিনের ওই সংখ্যাটির প্রচ্ছদ সংগ্রহ করতে পারলে। কিন্তু মহামারির এই সময়ে এসব প্রতিষ্ঠানে জনসমাগম সীমাবদ্ধ থাকায় স্বল্প সময়ের মধ্যে লাইব্রেরি ওয়ার্ক করা সম্ভব হয়নি। পরে এটি সংগ্রহ করতে পারলে ছবি যুক্ত করে দেয়া হবে এই প্রতিবেদনে।

সংযুক্তি:
বিডি ফ্যাক্টচেক বাংলাদেশি একজন সংগ্রাহকের কাছ থেকে টাইম ম্যাগাজিনের একটি কপির ছবি সংগ্রহ করতে সক্ষম হয়েছে। এ সংক্রান্ত বিস্তারিত দেখুন আমাদের পেইজের এই পোস্টে– https://www.facebook.com/bdfactcheck/posts/1241584952909164


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *