ভুয়া সংবাদে হাসিনা  ‘বিশ্বনেতা,’ ‘অদ্বিতীয়’ ও ‘মানবতাবাদী’ বনাম তারেক ‘দুর্নীতিবাজ,’ ‘অস্ত্র চোরাকারবারি’ ও ‘সন্ত্রাসি’

15 February, 2019 06:02 AM ইলেকশন চেক ২০১৮

জাহেদ আরমান:

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারর্পাসন তারেক রহমানকে নিয়ে ছড়ানো ভুয়া সংবাদে তাকে “দুর্নীতিবাজ,” “অস্ত্র চোরাকারবারি.” ও “সন্ত্রাসি” হিসেবে উপস্থাপন করা হয়েছে। অন্যদিকে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনাকে নিয়ে যেসব ভুয়া সংবাদ ছড়ানো হয়েছে তাতে তাকে "বিশ্বনেতা,” “অদ্বিতীয়,” মানবতাবাদী” ও “স্বৈরাচার” হিসেবেই চিত্রায়ন করা হয়েছে। বিডি ফ্যাক্টচেক পরিচালিত একটি গবেষণায় এমনটিই উঠে এসেছে।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে গত এক বছর ধরে মুলধারার গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মোট ৫০টি রাজনৈতিক ভুয়া সংবাদ চিহ্নিত করে বিডি ফ্যাক্টচেক। এর মধ্যে আওয়ামী লীগকে নিয়ে ১১টি, বিএনপিকে নিয়ে ১২টি, শেখ হাসিনাকে নিয়ে ১২ টি, বেগম খালেদা জিয়াকে নিয়ে ৪টি, তারেক রহমানকে নিয়ে ৬টি, সজীব ওয়াজেদ জয়কে নিয়ে একটি, এবং অন্যান্য দল ও ব্যক্তিকে নিয়ে ৪টি ভুয়া সংবাদ চিহ্নিত করা হয়েছে।

বাংলাদেশে যেহেতু অন্য কোনো সংস্থা রাজনৈতিক ফ্যাক্টচেক করে না তাই শুধু বিডি ফ্যাক্টচেককেই নমুনা হিসেবে নেয়া হয়েছে। সংস্থাটির প্রতিবেদনে উল্লেখিত ভুয়া সংবাদের লিংক থেকে প্রতিটি ভুয়া সংবাদ বের করে তা নমুনায় অন্তর্ভূক্ত করা হয়েছে।

ভুয়া সংবাদের আধেয় বিশ্লেষণে দেখা যাচ্ছে, সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে “বিশ্বনেতা” ও “দুর্নীতিবাজ” হিসেবেই উপস্থাপন করা হয়েছে।

রাজনৈতিক নেতাদের পাশাপাশি রাজনৈতিক দলসমূহকে ভুয়া সংবাদে কীভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে তাও যাচাই করেছে বিডি ফ্যাক্টচেক।

এসব ভুয়া সংবাদে দেখা যাচ্ছে, আওয়ামী লীগ ও বিএনপি উভয় দলই “দুর্নীতিবাজ,” “ভুয়া জরিপ প্রকাশকারী,” এবং “ক্ষমতায় যাওয়ার সিঁড়ি হিসেবে বহির্দেশের উপর নিভরশীল”।

এছাড়া ভুয়া সংবাদে আওয়ামীলীগ “উন্নয়নে বিশ্বাসী” এবং “মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের শক্তি” এমন প্রচারণা ছিল। অন্যদিকে বিএনপিকে “গণতন্ত্রকামী,” এবং “ইসলামপন্থী” হিসেবে উপস্থাপন করা হয়েছে ভুয়া সংবাদে।  

Related Post